স্বল্পোন্নত দেশগুলোয় আন্তর্জাতিক সহায়তা অব্যাহত রাখা প্রয়োজন: রাবাব ফাতিমা

জাতিসংঘ

জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা বলেছেন, স্বল্পোন্নত পর্যায় থেকে উত্তরিত এবং উত্তরণের পথে থাকা দেশগুলোর উন্নয়ন-অগ্রযাত্রা নিশ্চিত করতে আন্তর্জাতিক সহায়তা অব্যাহত রাখা প্রয়োজন।

শুক্রবার নিউইয়র্কে অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও উন্নয়ন সংস্থা (ওইসিডি) প্রকাশিত ‘মাল্টিলেটারাল ডেভেলপমেন্ট ফাইন্যান্স ২০২০’ শীর্ষক প্রকাশনার ওপর আয়োজিত উচ্চ পর্যায়ের অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে তিনি এ কথা বলেন।

রাবাব ফাতিমা চলমান কভিড-১৯ মহামারীর মধ্যেও বৈশ্বিক অর্থনীতিতে যেসব সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়েছে, তার পূর্ণ ব্যবহারের মাধ্যমে বিশ্ব অর্থনীতিতে বিদ্যমান দুর্বলতা অপসারণের প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দেন। স্বল্পোন্নত দেশগুলোর জন্য অতিরিক্ত অর্থায়ন এবং স্বল্প ব্যয় ও স্বল্প ঝুঁকির তহবিলের উৎসগুলোয় প্রবেশের সুযোগ নিশ্চিত করারও আহ্বান জানান তিনি।

বৈশ্বিক উন্নয়নে অর্থনৈতিক ব্যবস্থার জন্য উদার ও ন্যায়সংগত পরিচালন পদ্ধতি নিশ্চিত করার ওপরও জোর দেন জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি। জাতিসংঘের সংস্থাগুলো যাতে উন্নয়ন ও মানবিক অর্থায়নের মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখে সে বিষয়েও দৃষ্টি আকর্ষণ করেন তিনি।

এসডিজি বাস্তবায়নে জাতীয় সরকারগুলোর প্রচেষ্টা ও সম্পৃক্ততার বিষয়টি উল্লেখ করে উদ্ভাবনী অর্থায়ন, বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ও উদ্ভাবন এবং উদীয়মান প্রযুক্তিগুলোয় প্রবেশ ও ব্যবহারের ক্ষেত্রে যেসব দেশে সম্পদের ঘাটতি রয়েছে, তা পূরণে ওইসিডি সদস্য রাষ্ট্রগুলোকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান রাবাব ফাতিমা। স্বল্পোন্নতসহ ক্ষতিগ্রস্ত অন্যান্য দেশগুলোর জলবায়ুজনিত সংকট দূরীকরণে সম্মিলিত প্রচেষ্টা গ্রহণের ওপরও জোর দেন তিনি।

জাতিসংঘে নিযুক্ত সুইজারল্যান্ড ও ইন্দোনেশিয়ার স্থায়ী প্রতিনিধির যৌথ সভাপতিত্বে সদস্য দেশগুলোর রাষ্ট্রদূত, ওইসিডির পরিচালক, জাতিসংঘের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাসহ বিশেষজ্ঞরা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।❐

Share on Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *